ইনকিউবেটর: স্টার্ট আপের আঁতুড়ঘর(পর্ব-১)

0
8
ইনকিউবেটর স্টার্ট আপের আঁতুড়ঘর

যেকোন স্টার্ট আপের শুরু করার জন্য দরকার হয় ইনকিউবেশন অর্থাৎ সঠিক ব্যবস্থাপনা পরিচর্যা। যার মাধ্যমে যেকোন উদ্যোক্তার একটি আইডিয়া পরিণত হতে পারে একটি বিশাল ব্যবসায়। পুরো বিশ্বে রয়েছে এমন অনেক ইনকিউবেটর। যাদের সঠিক দিক নির্দেশনায় অনেক স্টার্টআপ পরিণত হয়েছে বিজনেস জায়ান্টে।বিশ্বের এমন ১৫  টি স্টার্ট আপ নিয়ে সাজানো হয়েছে আমাদের এই ইনকিউবেটর সিরিজ।পাঁচটি পর্বে মোট ১৫ টি স্টার্টআপ ইনকিউবেটর এর বৃত্তান্ত থাকবে এই সিরিজে। যার প্রথম পর্বে থাকছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বিখ্যাত তিনটি  ইনকিউবেটর এর পরিচয়:

ওয়াই কম্বিনেটর(Y Combinator), যুক্তরাষ্ট্র

ওয়াই কম্বিনেটর কে বলা হয় ইনকিউবেটদের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ইনকিউবেটর।এই ইনকিউবেটর প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বের অন্যতম পুরোনো ইনকিউবেটর প্রতিষ্ঠান।তাদের হাত ধরেই বিশ্বের অনেক বড় স্টার্টআপগুলো সাফল্যের ছোঁয়া পেয়েছে, যাদের মধ্যে অন্যতম হল Dropbox, Airbnb, Instacart, Twitch, Stripe, Coinbase, Weebly,  Reddit ইত্যাদি। 

ওয়াই কম্বিনেটর সবসময় স্টার্টআপ কালচারকে গতিশীল রাখতে কাজ করে যাচ্ছে। দিক নির্দেশনা বা মেন্টরশীপ ছাড়াও তারা স্টার্টআপগুলোকে বিনিয়োগ যোগান দিতেও সহায়তা করে থাকে। প্রতি বছর ওয়াই কম্বিনেটর অনেকগুলো স্টার্টআপের জন্য প্রায় ১,২০,০০০ মার্কিন ডলার এর মতো ফান্ড রেইজ করে থাকে।

এই ইনকিউবেটরটির যাত্রা শুরু হয়েছিল ২০০৫ সালে।প্রতিষ্ঠাতা গ্রাহাম পলের হাত ধরে শুরু হওয়ার পর এটি প্রায় ২০০০+ স্টার্ট আপের ইনকিউবেশন করে। ফান্ডিংও রেইজ করে প্রচুর পরিমাণে।সংখ্যায় যার পরিমাণ ও অনেক (প্রায় ১০০ বিলিয়ন+ মার্কিন ডলার)!!

পাউলো আলটো,সিলিকন ভ্যালিতে এর অফিস অবস্থিত। প্রতিষ্ঠানটি ৪০ জনের একটি সুদক্ষ টিম দ্বারা পরিচালিত হয়। প্রতিবছর এই প্রতিষ্ঠানে পুরো বিশ্ব থেকে গড়ে প্রায় ১৩,০০০ ইউকিউবেশনের আবেদন জমা পড়ে। যার মধ্য থেকে তারা ২০০ থেকে ২৪০ টি স্টার্টআপকে তাদের দ্রেকোনিয়ান সিলেকশন সিস্টেম এর মাধ্যমে বাছাই করে থাকে।কাজ শুরু করার পর অর্থনৈতিক বিভিন্ন চুক্তি করা হয়। এই চুক্তিগুলো SAFE নামে পরিচিত। Early Stage স্টার্টআপ গুলো ওয়াই কম্বিনেটর থেকে এমন ত্রি মাসিক একটি সুবিধা পায়,যার মাধ্যমে স্টার্টআপগুলো সিলিক্যান ভ্যালিতে অবস্থান করে নিজেদের ব্যবসাকে এগিয়ে নিতে পারে।এ সময় কোম্পানিগুলো নিজেদের মানোন্নয়ন করার মাধ্যমে  বড় বিনিয়োগের জন্য নিজেদের প্রস্তুত করতে পারে।

এক নজরে ওয়াই কম্বিনেটর :

তারা যা দেয়:                     ১,৫০,০০০ মার্কিন ডলার % ইকুইটির বিনিময়ে প্রদান করে।
বিনিয়োগপ্রাপ্ত স্টার্টআপ :     ২০০০ এর চেয়ে বেশী।
সফল স্টার্টআপ:                 ২৪৬
এক্সিট ভ্যালু :                     .০৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার( প্রায়)
ফান্ড রাইজিং:                    ৩৪.০৮৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। (প্রায়)

টেকস্টারস (TechStars),যুক্তরাষ্ট্র :

২০০৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হওয়া এই ইউকিউবেটর ১৫ টি দেশে নিজেদের সার্ভিস পরিচালনা করে।টেকস্টারস পৃথিবীর যেকোন প্রান্ত থেকে যুক্ত হওয়া টেকড্রাইভেন স্টার্টআপ গুলোকে সহায়তা করে থাকে।মেন্টরশীপ ছাড়াও তারা স্টার্টআপ এক্সেলারেশন প্রোগ্রাম করে থাকে।তাদের এক্সেলারেশন এর মাধ্যমে সারা বিশ্ব থেকে ১০০০+ স্টার্ট আপ সফলতা পেয়েছে যার মোট ভ্যালু প্রায় বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

টেকস্টারস যেকোন স্টার্টআপের শূন্য থেকে শুরু করে আইপিও শেয়ার পর্যন্ত যে বিশাল বিজনেস জার্নি হয় তাতে মেন্টর শীপ করে থাকে। তাদের এই মেন্টর শীপ এক্সেলারেশন এর মাধ্যমে অনেক বড় স্টার্টআপ উঠে এসেছে। যার মধ্যে অন্যতম হল  Uber, Digital Ocean, Twilio, SendGrid.

বর্তমানে টেকস্টারস ১৫ টি দেশে  ৪৭ টি এক্সেলারেটর  প্রোগ্রাম পরিচালনা করছে। তারা স্টার্টআপগুলোকে মেন্টরশীপ ড্রাইভেন ক্যাটালিস্ট প্রোগ্রাম,কমার্শিয়াল এডভান্স পার্টনারশিপ, ভেঞ্চার ক্যাপিটাল ফান্ড রাইজিং নামে বিভিন্ন ধরনের মেন্টরশীপ এক্সেলারেশন এর মাধ্যমে ব্যবসার প্রসার ঘটাতে সাহায্য করে থাকে। 

এক নজরে Techstars:

যা দেয়া হয় এই ইনকিউবেশনে: এক লক্ষ ডলারের কনভারটিবল নোট,যার মধ্যে ২০,০০০ ডলার                                                         টেকস্টারস % ইকুইটির বিনিময়ে দিয়ে থাকে।

ফান্ডেড স্টার্টআপ:                 ১৫৫৭
সফল এক্সিট:                        ২০৪
মোট এক্সিট ভ্যালু:                 . বিলিয়ন মার্কিন ডলার (প্রায়)
মোট ফান্ড রাইজিং:               .৬৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার (প্রায়)

৫০০ স্টার্টআপস (500 Startups),যুক্তরাষ্ট্র :
২০১০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় ক্যালিফোর্নিয়া, সানফ্রান্সিককো ভিত্তিক স্টার্টআপ ইনকিউবেটর।  ১৫০ সদস্য বিশিষ্ট একটি দক্ষ কর্মী বাহিনী দ্বারা পরিচালিত কোম্পানিটি ২০ টি দেশে নিজেদের কাজ পরিচালনা করে এবং মোট ৭৪ টি দেশের স্টার্টআপের ইনকিউবেশন পরিচালনা করে থাকে। তাদের মূল কাজ হচ্ছে, বিশ্বব্যাপী একটি স্টার্টআপ ইকোসিস্টেম পরিচালনা করে সারা বিশ্বের ইনোভেটিভ স্টার্টআপগুলো সাপোর্ট করা। যার জন্য তারা মাস ব্যাপী একটি সীড ইনকিউবেশন প্রোগ্রাম পরিচালনা করে।

তাছাড়া তাদের বিনিয়োগ বিভাগে এ্যাপল,গুগল,ফেসবুক,লিংকডইন,টুইটার এর সাথে যুক্ত এমন অনেকেই রয়েছেন। তাদের কাছ থেকে বিনিয়োগ সম্পর্কিত অনেক সাহায্য পেয়ে থাকে স্টার্টআপ প্রতিষ্ঠান গুলো। Twilio,Canva এবং Udemy হচ্ছে তাদের ইনকিউবেশনে থাকা ২০০০+ প্রতিষ্ঠানের মধ্যে অন্যতম। 

এক নজরে 500 Startups:
তারা যা দেয়:                      % ইকুইটির বিনিময়ে ১৫০০০০ মার্কিন ডলার বিনিয়োগ।
বিনিয়োগপ্রাপ্ত স্টার্টআপ:       ২২০০
সফল এক্সিট:                      ১৯০
মোট এক্সিট ভ্যালু:               .১৩ কোটি মার্কিন ডলার (প্রায়)
মোট ফান্ড রাইজিং:             .৪৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ( প্রায়)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here